কোরআন ও সহীহ সুন্নাহ ভিত্তিক প্রশ্নোত্তর প্রচার করাই হল এই ওয়েবসাইটের মূল উদ্দেশ্য।।

রোজা ও রমজান

রোযাদারের নাকে, কানে ও চোখে ড্রপ ব্যবহার করার বিধান কি

প্রশ্নঃ রোযাদারের নাকে, কানে ও চোখে ড্রপ ব্যবহার করার বিধান কি? ——————————– উত্তরঃ নাকের ড্রপ ব্যবহার করলে যদি তা পেটে পৌঁছে তবে রোযা ভঙ্গ হয়ে যাবে। কেননা লাক্বীত বিন সাবুরা (রাঃ) থেকে বর্ণিত হয়েছে, নবী (ছাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম) তাঁকে বলেন, وَبَالِغْ فِي الِاسْتِنْشَاقِ إِلَّا أَنْ تَكُونَ صَائِمًا ছিয়াম অবস্থায় না থাকলে ওযুর ক্ষেত্রে নাকে …

রোযাদারের নাকে, কানে ও চোখে ড্রপ ব্যবহার করার বিধান কি Read More »

বাংলাদেশও ভারতের মুসলিমগণ আরাফাত দিবসের রোযা কোন দিন রাখবে?

প্রশ্ন: বাংলাদেশও ভারতের মুসলিমগণ আরাফাত দিবসের রোযা কোন দিন রাখবে? সৌদি আরবের সাথে কি মিল রেখে রাখবে না কি দেশের চাঁদের হিসেবে রাখবে? উত্তর: আরাফা দিবসে একটি রোযার বিনিময়ে আল্লাহ তাআলা পেছনের ও সামনের দু বছরের গুনাহ মোচন করে দেন। আল হামদুলিল্লাহ। এ মর্মে হাদীস হল: عَنْ أَبِي قَتَادَةَ قَالَ قَالَ رَسُولُ اللهِ صلى الله …

বাংলাদেশও ভারতের মুসলিমগণ আরাফাত দিবসের রোযা কোন দিন রাখবে? Read More »

জিলহজ্জ মাসে আইয়ামে বীযের রোযা রাখার বিধান কি?

প্রশ্ন: জিলহজ মাসে আইয়ামে বীযের রোজা রাখার বিধান কি? উত্তর: ঈদুল ফিতর, ঈদুল আযহা এবং আইয়ামে তাশরিকের তিন দিন রোজা রাখা নিষেধ। (মোট ৫ দিন)। ঈদুল আযহার পরের তিন দিন তথা জিলহজ মাসের ১১, ১২ ও ১৩ তারিখকে ‘আইয়ামে তাশরীক’ বলা হয়। হাদীসে এ দিনগুলোকে ‘পানাহার ও আল্লাহর যিকির’ এর দিন বলা হয়েছে। এ তিন …

জিলহজ্জ মাসে আইয়ামে বীযের রোযা রাখার বিধান কি? Read More »

কাদের জন্য কুরবানীর পরের আইয়ামে তাশরীকের তিন দিন রোযা রাখা জায়েয

সাধারণভাবে ঈদুল আযহা এবং ‌এর পরের তিন দিন (আইয়ামে তাশরিকে) রোযা রাখা হারাম। কিন্তু বিশেষ তিন শ্রেণীর মানুষের জন্য জায়েয। আসুন জেনে নি, তারা কারা? প্রশ্ন: কাদের জন্য কুরবানীর পরের আইয়ামে তাশরীকের তিন দিন রোযা রাখা জায়েয? উত্তর: রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম ঈদুল আযহার দিন ও তার পরে আইয়ামে তাশরীকের তিন দিন (জিলহজ্ব মাসের …

কাদের জন্য কুরবানীর পরের আইয়ামে তাশরীকের তিন দিন রোযা রাখা জায়েয Read More »

ফরয কাযা রোযা এবং নফল রোযা রাখার নিয়ত করার পর তা ভেঙ্গে ফেলার বিধান

প্রশ্ন: নফল রোজা রাখার নিয়ত করে যদি তা রাখতে না পারি তাহলে কি গুনাহ হবে? আর তা কি আবার রাখতেই হবে? অনুরূপভাবে যদি রমাযানের ফরয রোযা বা মানতের রোযা রাখার পর তা ভেঙ্গে ফেলি তাহলে কি গুনাহ হবে? উত্তর: কেউ যদি নফল রোযা রাখার নিয়ত করে রোযা শুরু করে তাহলে তা ইচ্ছে করলে ভেঙ্গে ফেলা …

ফরয কাযা রোযা এবং নফল রোযা রাখার নিয়ত করার পর তা ভেঙ্গে ফেলার বিধান Read More »

আশুরা তথা মুহররমের ১০ তারিখে রোযা রাখার ফযিলত কি

প্রশ্ন: আশুরা তথা মুহররমের ১০ তারিখে রোযা রাখার ফযিলত কি? এ দিন ভালো খাবারের আয়োজন করলে সারা বছর ভালো খাওয়া যায়-এ কথা কি ঠিক? ▬▬▬◄❖►▬▬▬ উত্তর: ◈◈ আশুরার রোযা রাখার ফযিলত: বিশুদ্ধ হাদিসে বর্ণিত হয়েছে, আশুরা তথা মুহররম মাসের ১০ তারিখে রোযা রাখলে আশা করা যায়, আল্লাহ তাআলা পেছনের এক বছরের গুনাহ মোচন করে দিবেন। …

আশুরা তথা মুহররমের ১০ তারিখে রোযা রাখার ফযিলত কি Read More »

ঋতুবতি মহিলাগণ কিভাবে লাইলাতুল কদরে ইবাদত করবে?

উত্তর: মহিলাদের মাসিক ঋতুস্রাব কদর রাত পাওয়ার ক্ষেত্রে প্রতিবন্ধক নয়। তাই ঋতুবতি মহিলাগণ এ রাতে নামায, কুরআন তিলাওয়াত ও কাবা শরীফের ত্বওয়াফ ছাড়া অন্যান্য সকল প্রকার ইবাদত করতে পারে। যেমন: বেশি বেশি দরুদে ইব্রাহীম পাঠ করা, তাসবীহ, যিকর-আযকার, যেমন, “লা ইলাহা ইল্লাল্লাহ”, “আল্ হামদু ল্লিল্লাহ” “সুবহানাল্লাহ”, “আল্লাহুআকবার” “আস্তাগফিরুল্লাহ”, “লা হাওলা ওয়ালা কুউআতা ইল্লা বিল্লাহ”। দুআ-মুনাজাত, …

ঋতুবতি মহিলাগণ কিভাবে লাইলাতুল কদরে ইবাদত করবে? Read More »

ইতিকাফের গুরুত্ব, উপকারিতা ও ফযিলত

ইতিকাফ করা সুন্নতে মুয়াক্কাদাহ (গুরুত্বপূর্ণ সুন্নত)। রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম প্রতি রমাযানে ১০ দিন ইতি-কাফ করতেন। কিন্তু যে বছর তিনি মৃত্যু বরণ করেন সে বছর একটানা ২০ দিন ইতিকাফ করেছেন। (সহীহ বুখারী, অধ্যায়: ইতি-কাফ, আবু হুরায়রা রা. হতে বর্ণিত) ✅ ইতিকাফের কতিপয় উপকারিতা: ঈমানদারের জন্য ইতিকাফে অসংখ্য উপকারিতা রয়েছে। নিম্নে সেগুলো কয়েকটি উল্লেখ করা …

ইতিকাফের গুরুত্ব, উপকারিতা ও ফযিলত Read More »

শবে কদর কি শুধু রামাযানের সাতাইশ রাতের জন্য নির্দিষ্ট?

প্রশ্ন:-শবে কদর কি শুধু রামাযানের সাতাইশ রাতের জন্য নির্দিষ্ট? উত্তর :-আমাদের দেশে সাধারণত: মানুষ শুধু রামাযানের সাতাইশ তারিখে রাত জেগে ইবাদত বন্দেগী করে এবং ধারণা করে এ রাতেই শবে কদর হবে। কিন্তু এ ধারণা সুন্নতের সাথে সঙ্গতীপূর্ণ নয়। কারণ, আয়েশা (রা:) হতে বর্ণিত রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বলেন: « تَحَرَّوْا لَيْلَةَ الْقَدْرِ فِى الْوِتْرِ …

শবে কদর কি শুধু রামাযানের সাতাইশ রাতের জন্য নির্দিষ্ট? Read More »

ইফতারের পূর্বে দুআ কবুলের সম্ভাবনা বেশি

প্রশ্ন: “ইফতারের পূর্বে কি দুআ কবুল হয়” এ মর্মে বর্ণিত হাদিসটি কি সহীহ? উত্তর: রোযা অবস্থায় দুআ ফিরিয়ে দেয়া হয় না এ ব্যাপারে সহীহ হাদিস রয়েছে। নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেন, ثَلاَثُ دَعَوَاتٍ لاَ تُرَدُّ دَعْوَةُ الْوَالِدِ، وَدَعْوَةُ الصَّائِمِ، وَدَعْوَةُ الْمُسَافِرِ ‘‘তিন ব্যক্তির দুআ অগ্রাহ্য করা হয় না (বরং কবুল করা হয়); পিতার দুআ, রোজাদারের …

ইফতারের পূর্বে দুআ কবুলের সম্ভাবনা বেশি Read More »

রোযা অবস্থায় বিশেষ করে ইফতারের পূর্বে দুআ কবুলের সম্ভাবনা বেশি

রোযা অবস্থায় বিশেষ করে ইফতারের পূর্বে দুআ কবুলের সম্ভাবনা বেশি (সাথে রয়েছে ইফতারের পূর্বে দুআ কবুলের হাদিসটির ব্যাপারে মুহাদ্দিসদের বক্তব্য) ▬▬▬▬◆◈◆ ▬▬▬▬ রোযা অবস্থায় দুআ করলেও তা কবুল হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। এ মর্মে রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বলেন: ثلاث دعوات لا ترد : دعوة الوالد لولده ، ودعوة الصائم ودعوة المسافر “তিন ব্যক্তির দুআ …

রোযা অবস্থায় বিশেষ করে ইফতারের পূর্বে দুআ কবুলের সম্ভাবনা বেশি Read More »

জুমাতুল বিদা কি? ইসলামের দৃষ্টিতে এটি পালনের কি কোন ভিত্তি আছে?

জুমাতুল বিদা বলতে বুঝায়, রমাযানের শেষ জুমা সালাতের মাধ্যমে রমাযানকে বিদায় জানানো। আমাদের দেশে দেখা যায়, রমাযানের শেষ শুক্রবারকে খুব গুরুত্বের সাথে ‘জুমাতুল বিদা’ হিসেবে পালন করা হয়। এ উপলক্ষে জুমার নামাযে পরিলক্ষিত হয় প্রচুর ভিড়। এ দিনে কেউ কেউ মিলাদ মাহফিলের আয়োজন করে, কেউ কেউ এ দিন উপলক্ষে বিশেষ কিছু নামায পড়ে, মসজিদে মসজিদে …

জুমাতুল বিদা কি? ইসলামের দৃষ্টিতে এটি পালনের কি কোন ভিত্তি আছে? Read More »

বিশ্বব্যাপী একসাথে রোযা শুরু এবং একসাথে ঈদ পালন: কতটুকু সঠিক?

প্রশ্ন : মতোবিরোধপূর্ণ মাসায়েলের ক্ষেত্রে কি যে কোনো একটা মানলেই হবে? যেমন: পৃথিবীর যে কোনো এক স্থানে চাঁদ দেখার উপর ভিত্তি করে সারাবিশ্বে এক দিনে রোযা শুরু করা বা ঈদ পালন করা কিংবা এলাকা ভিত্তিক চাঁদ দেখার উপর ভিত্তি করে এসব ইবাদত করা। এ বিষয়ে সবার পক্ষেই হাদিস সহিহ সনদে বর্ণিত। তাহলে এ ক্ষেত্রে যেকোনো …

বিশ্বব্যাপী একসাথে রোযা শুরু এবং একসাথে ঈদ পালন: কতটুকু সঠিক? Read More »

ইফতারী তৈরি, ইফতারের নানা আইটেম আর ইফতার পার্টির বিভিন্ন ছবি ফেসবুকে শেয়ার

প্রশ্ন: ইফতারী তৈরি, ইফতারের নানা আইটেম আর ইফতার পার্টির বিভিন্ন ছবি ফেসবুকে শেয়ার দেয়া কি ঠিক? ▬▬▬▬◆◈◆ ▬▬▬▬ উত্তর: ফেসবুকে এ সব ছবি প্রচার-প্রসার করার কী উদ্দেশ্য? আমাদের জানা দরকার যে, মানুষকে ইফতার খাওয়ানো অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ইবাদত। কারণ হাদীসে এসেছে, যে ব্যক্তি কোন রোযাদারকে ইফতার করায় সে ব্যক্তি সমপরিমান সওয়াবের অধিকারী হয়। অনুরূপভাবে ইফতারী তৈরি …

ইফতারী তৈরি, ইফতারের নানা আইটেম আর ইফতার পার্টির বিভিন্ন ছবি ফেসবুকে শেয়ার Read More »

রমজানের শেষ দশকে কি ধরণের আমল করা উচিত

প্রশ্ন: রমজানের শেষ দশকে কি ধরণের আমল করা উচিত? উত্তর: আলেমগণ বলেছেন, “বছরের শ্রেষ্ঠ ১০টি দিন হল, জিলহজ্ব মাসের প্রথম দশ দিন আর শ্রেষ্ঠ রাত হল, রমজানের শেষের দশ রাত। আমাদের কর্তব্য হল, রমজানের শেষ দশ দিনে রোজা থাকা এবং রাতে বেশি বেশি এবাদত-বন্দেগী করা। যেমন: কিয়ামুল লাইল তথা তারাবিহ/তাহাজ্জুদ, কুরআন তেলাওয়াত, কুরআনের তরজমা ও …

রমজানের শেষ দশকে কি ধরণের আমল করা উচিত Read More »

বাড়িতে থেকে বা কাজ-কর্ম ও ডিউটি পালন করে ‘লাইলাতুল কদর’ এর মর্যাদা লাভ করার উপায় কি?

প্রশ্ন: লাইলাতুল কদরের ফজিলত পেতে হলে কি মসজিদে গিয়ে সারা রাত ইবাদত করা শর্ত নাকি যে যেখানে থাকে সেখানে ইবাদত করলে হবে? অনুরূপভাবে এ জন্য কি সারা রাত জগেে ইবাদত করা জরুরি না কি কিছু ঘুমানো যাবে? উত্তর: লাইলাতুল কদর ফজিলত পেতে হলে মসজিদে গিয়ে সারা রাত ইবাদত করা শর্ত নয়। অর্থাৎ পুরুষরা যদি ইশা …

বাড়িতে থেকে বা কাজ-কর্ম ও ডিউটি পালন করে ‘লাইলাতুল কদর’ এর মর্যাদা লাভ করার উপায় কি? Read More »

শবে কদরের বিশেষ দুআ এবং তা কখন কিভাবে পড়তে হয়?

প্রশ্ন: শবে কদরের বিশেষ দুআ এবং তা কখন কিভাবে পড়তে হয়? ▬▬▬▬◆◈◆ ▬▬▬▬ উত্তর: শবে কদর/লাইলাতুল কদরে রাত জেগে অধিক পরিমাণে নফল সালাত, কুরআন তিলাওয়াত, যিকির-আযকার, দ্বীনী ইলম চর্চা সহ বিভিন্ন ধরণের ইবাদত-বন্দেগীর পাশাপাশি বেশি বেশি দুআ করা উত্তম কাজ। আর সে সব দুআর মধ্যে নিম্নোক্ত দুআটি অধিক পরিমাণে পাঠ করা উচিৎ যা নবী সাল্লাল্লাহু …

শবে কদরের বিশেষ দুআ এবং তা কখন কিভাবে পড়তে হয়? Read More »