কোরআন ও সহীহ সুন্নাহ ভিত্তিক প্রশ্নোত্তর প্রচার করাই হল এই ওয়েবসাইটের মূল উদ্দেশ্য।।

যে আমার কাছ থেকে ঋণ নিয়েছে সে ঋণ পরিশোধে ব্যর্থ হলে সেই ঋণের টাকা কি আমি তাকে যাকাত হিসেবে দিয়ে দিতে পারব

প্রশ্ন: এক ভাই আমার কাছ থেকে কর্জে হাসানা নিয়েছিল পাঁচ বছর আগে দুই সপ্তাহের কথা বলে। তারপর থেকে সে টাকা দেওয়ার জন্য বিভিন্ন তারিখ করেও দেয় না। সে বিভিন্ন সমস্যার কথা বলে আমাকে এড়িয়ে চলছে। তাকে মেসেজ দিল সে মেসেজ দেখেও কোন উত্তর দেয় না। পরবর্তীতে আমি এক ভাইয়ের মাধ্যমে জানতে পারছি, তার আর্থিক অবস্থা নাকি একটু খারাপ। কিন্তু আমি জানি না, এটা কতটুকু সত্য।

এখন প্রশ্ন হল, আমি প্রতি বছর যে যাকাত দেই তা যদি ওই ভাইকে এ ভাবে বলে দেই যে, আপনার কাছে আমার পাওনা টাকা টা যাকাত হিসেবে আপনাকে দিয়ে দিলাম। অথবা আমি যদি মুখে তাকে সরাসরি কিছু না বলে শুধু আমার অন্তরে নিয়ত রেখে শুধু উনাকে বললাম যে, আমি আপনাকে টাকাটা মাফ করে দিয়েছি। এ ভাবে কি যাকাত আদায় হবে?

উত্তর :
কাউকে ঋণ দেয়ার পর সে যদি ঋণ দিতে অপারগ হয়ে যায় বা আর্থিক সমস্যায় থাকে তাহলে ঋণদাতা যদি উক্ত পরিমাণ অর্থ তাকে যাকাত দেওয়ার নিয়ত করে নেয় অথবা তাকে বলে দেয় যে, এটা তোমাকে যাকাত হিসেবে দিয়ে দিলাম তাহলে তাতে যাকাত আদায় হবে কি না-এ ব্যাপারে সবচেয়ে নির্ভরযোগ্য কথা হল, এতে যাকাত আদায় হবে না। এটিই জুমহুর বা অধিকাংশ ওলামার অভিমত। এর একটি কারণ হল, যাকাতের হকদার ব্যক্তিকে যাকাত প্রদানের সময় যাকাতের নিয়ত থাকা শর্ত। কিন্তু এখানে ঋণগ্রহীতাকে অর্থ দেয়ার সময় যাকাত দেয়ার নিয়ত ছিল না বরং নিয়ত ছিল কর্জ দেয়া।
আল্লাহু আলাম।

➖➖➖➖➖➖➖➖
উত্তর প্রদানে:
আব্দুল্লাহিল হাদী বিন আবদুল জলীল মাদানি
দাঈ, জুবাইল দাওয়াহ এন্ড গাইডেন্স সেন্টার, KSA

Share This Post