ছেঁড়া-ফাটা ও টেপ লাগানো টাকা: শরিয়তের দৃষ্টিতে কী করণীয়?

প্রশ্ন: বাসে, বাজারে কেনাকাটা করতে গিয়ে অনেক সময় হেল্পার ও বিক্রেতা টাকা চেঞ্জ করার সময় ছেঁড়া ও টেপ দেওয়া টাকা দিয়ে থাকে।
আমরাও অনেক সময় খেয়াল না করে তা নিয়ে নেই। পরবর্তীতে আমাদের উদ্দেশ্য থাকে কোনভাবে টাকা টা চালিয়ে দেওয়ার।

এটি কতটুকু শরিয়ত সম্মত এবং এ ক্ষেত্রে আমাদের করণীয় কী?

উত্তর
টাকাটা যদি এমন ছেঁড়া-ফাটা, আঠা বা কস্টেপ দিয়ে জোড় লাগানো হয় যে, কোনো সচেতন ব্যক্তির দৃষ্টিগোচর হলে সে নিতে চাইবে না বা আসলেই তা বাজারে অচল তাহলে এমন টাকা অন্যান্য ভালো টাকার মধ্যে ভরে কৌশল করে কোনোমতে চালিয়ে দেয়ার চেষ্টা প্রতারণার শামিল। এমনটি করা জায়েজ নেই। বরং উক্ত টাকাটা অন্যান্য টাকার উপরে রাখতে হবে যেন, গ্রহীতা তা দেখতে পারে। ইচ্ছে হলে তা গ্রহণ করবে অন্যথায় পরিত্যাগ করবে।

এ ক্ষেত্রে নিম্নোক্ত হাদিসটি প্রণিধানযোগ্য:

عَنْ أَبِي هُرَيْرَةَ – رضي الله عنه – أَنَّ رَسُولَ اللَّهِ – صلى الله عليه وسلم – مَرَّ عَلَى صُبْرَةِ طَعَامٍ، فَأَدْخَلَ يَدَهُ فِيهَا، فَنَالَتْ أَصَابِعُهُ بَلَلًا، فَقَالَ: «مَا هَذَا يَا صَاحِبَ الطَّعَامِ» ? قَالَ: أَصَابَتْهُ السَّمَاءُ يَارَسُولَ اللَّهِ. قَالَ: «أَفَلَا جَعَلْتَهُ فَوْقَ الطَّعَامِ; كَيْ يَرَاهُ النَّاسُ? مَنْ غَشَّ فَلَيْسَ مِنِّي» رَوَاهُ مُسْلِمٌ
একবার রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম কোন এক খাদ্য স্তূপের পাশ দিয়ে যাওয়ার সময় তিনি খাদ্য স্তূপে হাত ঢুকিয়ে দিয়ে দেখলেন তার হাতর আঙ্গুল ভিজে গেছে।
তিনি বললেন: হে খাদ্যের মালিক! ব্যাপার কি?
উত্তরে খাদ্যের মালিক বলল: হে আল্লাহর রাসূল, বৃষ্টিতে ভিজে গেছে।

রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বললেন: “তাহলে ভেজা অংশটা শস্যের উপরে রাখলে না কেন? যাতে ক্রেতারা তা দেখে ক্রয় করতে পারে। নিশ্চয়ই যে প্রতারণা করে সে আমার উম্মত নয়।” (সহিহ মুসলিম; মিশকাত হা/২৮৬০)

অবশ্য যদি টাকার নোট সামান্য ছেঁড়া-ফাটা বা টেপ লাগানো হয় যা সাধারণত: মানুষ গ্রহণ করে বা বাজারে প্রচলিত তাহলে তাতে সমস্যা নেই ইনশাআল্লাহ। তবুও তা অন্যান্য টাকার উপরে রাখা বা গ্রহীতাকে জানিয়ে দেয়া উত্তম।

➤ কোনো টাকা বেশি পরিমাণে ছেঁড়া-ফাটা হলে কৌশলে চালিয়ে দেয়ার চেষ্টা না করে একটু কষ্ট করে দেশের যে কোনো ব্যাংকের শাখায় গিয়ে তা পরিবর্তন করে নিন। কেননা, বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্দেশ অনুযায়ী (শর্ত সাপেক্ষে) দেশের যে কোনো ব্যাংকের যেকোনো শাখা থেকে ছেঁড়া–ফাটা, খণ্ডিত, আগুনে পোড়া ও ময়লা টাকার নোট বদল করা যায়।
আল্লাহ তাওফিক দান করুন। আমীন।
আল্লাহু আলাম।
▬▬▬◄❖►▬▬▬
উত্তর প্রদানে:
আব্দুল্লাহিল হাদী বিন আব্দুল জলীল
জুবাইল, সৌদি আরব।।